আজঃ রবিবার ● ২রা আষাঢ় ১৪৩১ ● ১৬ই জুন ২০২৪ ● ৯ই জিলহজ্জ ১৪৪৫ ● বিকাল ৪:২০
শিরোনাম

By মুক্তি বার্তা

বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের পরিবারকে নিশ্চিহ্ন করতেই ২১ আগষ্ট গ্রেনেড হামলা হয়েছিল

ফাইল ছবি

যারা স্বাধীন বাংলাদেশ মেনে নিতে পারেনি তারাই ১৫ আগষ্ট জাতির জনক বঙ্গবন্ধুকে স্বপরিবারে হত্যা করেছিল। তারই ধারাবাহিকতায় এবং খুনি জিয়ার সেই অসমাপ্ত কাজকে সমাপ্ত করতে এবং বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের পরিবারকে নিশ্চিহ্ন করতেই ২১ আগষ্ট গ্রেনেড হামলা হয়েছিল। খুনি জিয়ার যোগ্য উত্তরসূরি খালেদা জিয়া ও তাদের কুপুত্র তারেক জিয়ার চক্রান্তেই ২০০৪ সালের এই দিনে (২১ আগষ্ট) জননেত্রী শেখ হাসিনাসহ বাংলাদেশ আওয়ামী লীগকে মেধা শূন্য করতেই এই ঘৃন্য খুনের পরিকল্পনা করা হয়। এই খুনিদের বিচারের মাধ্যমে দ্রুত মৃত্যুদন্ড ঘোষনা করতে হবে। সেই সাথে যেসকল স্বাধীনতা বিরোধী শক্তি এখনও দেশকে অস্থির করে প্রধানমন্ত্রী জননেত্রী শেখ হাসিনার উন্নয়নকে বাধাগ্রস্থ করতে চায় তাদের সম্বন্ধে সকলকে সজাগ থাকতে হবে। এবং বঙ্গবন্ধুর সঠিক আদর্শকে বুকে ধারন করে সোনার বাংলা গড়তে ছাত্রলীগকে আরো সচেতন ও অগ্রনী ভুমিকা পালন করতে হবে।

শুক্রবার (২১ আগষ্ট) যশোরের চৌগাছা উপজেলা আওয়ামী লীগের দলীয় কার্যালয়ে ২১ আগষ্ট গ্রেনেড হামলায় শহীদ সকলের স্মরনে উপজেলা ছাত্রলীগের দোয়া মাহফিল ও আলোচনা সভায় প্রধান অতিথির বক্তেব্যে এসকল কথা বলেন চৌগাছা উপজেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি বীর মুক্তিযোদ্ধা এসএম হাবিবুর রহমান।

চৌগাছা উপজেলা ছাত্রলীগের সহ-সভাপতি সাদেকুর রহমানের সভাপতিত্বে উপজেলা আওয়ামী লীগের কার্যালয়ে স্বাস্থ্যবিধি মেনে এই মিলাদ মাহফিল ও আলোচনা সভা অনুষ্ঠিত হয়।

উপজেলা ছাত্রলীগের সাধারন সম্পাদক শফিকুজ্জামান রাজুর সঞ্চালনায় অন্যান্যদেও মধ্যে বক্তব্য রাখেন উপজেলা আওয়ামী লীগের কার্য নির্বাহী কমিটির সদস্য ও যশোর এমএম কলেজ ছাত্রলীগের সাবেক সাধারন সম্পাদক আশরাফুল আলম, এস এম রেজোয়ান হাবিব আলিফ, উপজেলা যুবলীগের যুগ্ম-আহবায়ক শরিফুল ইসলাম, যুবলীগ নেতা মঈনুল ইসলাম, সবুজ হোসেন, সজল, ছাত্রলীগের যুগ্ম-সম্পাদক হাসান, সাংগাঠনিক সম্পাদক রাজু আহম্মেদ, দপ্তর সম্পাদক হাসেম আলী প্রমুখ।
মুবার্তা/এস/ই

ফেসবুকে লাইক দিন